08/07/2020 : 5:27 PM
BREAKING NEWS
আমার দেশ ব্যবসা বণিজ্য

বাঁশ শিল্প দেশের উত্তর পূর্বাঞ্চলে ‘লোকাল ফর ভোকাল’ মন্ত্রে‘ আত্মনির্ভর ভারত অভিযানে গতি আনবেঃ ডঃ জীতেন্দ্র সিং

বিশেষ প্রতিনিধি, দিল্লিঃ কেন্দ্রের পূর্বাঞ্চলীয় উন্নয়ন প্রতিমন্ত্রী (স্বতন্ত্র দায়িত্বপ্রাপ্ত), পিএমও, কর্মচারী, জন অভিযোগ, পেনশন, পারমাণবিক শক্তি ও মহাকাশ দপ্তরের প্রতিমন্ত্রী, ডাঃ জিতেন্দ্র সিং আজ বলেছেন যে বাঁশ শিল্প উত্তর পূর্ব অঞ্চলে আত্মনির্ভর ভারত অভিযানে গতি আনতে সহায়ক হবে এবং ইতিমধ্যেই তা শুধু সমগ্র ভারত নয় গোটা উপমহাদেশে বাণিজ্যের ক্ষেত্রে একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হয়ে উঠেছে। ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে পর্যালোচনা বৈঠকের পরে ডঃ সিংহ একথা বলেন। আজকের বৈঠকে উত্তর পূর্বাঞ্চলের উন্নয়ন মন্ত্রক (এম ডি ও এন ই আর) এবং শিলংয়ের উত্তর পূর্ব কাউন্সিলের (এনইসি) উর্ধ্বতন আধিকারিকরা অংশ নেন।

কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বলেছেন যে বাঁশ শুধুমাত্র ভারতের কোভিড-পরবর্তী অর্থনীতির জন্যই গুরুত্বপূর্ণ নয়, এটি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর “ভোকাল ফর লোকাল” এর আহ্বানেও নতুন গতির সঞ্চার করবে। তিনি বলেছেন যে মোদী সরকার যে সংবেদনশীলতার সাথে বাঁশ শিল্পকে গুরুত্বের সাথে দেখেছে তা স্পষ্টতই প্রমাণিত হয়, লকডাউন সময়কালেও গত ১৬ই এপ্রিল স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক বিভিন্ন ক্ষেত্রে যে সীমিত কার্যক্রম চালিয়ে যাওয়ার অনুমতি দেয় তার মধ্যে বাঁশ সম্পর্কিত কার্যক্রম যেমন রোপণ, প্রক্রিয়াকরণ ইত্যাদিও ছিল।

করোনা সংকটের সময়েও উত্তর পূর্বাঞ্চলের উন্নয়ন মন্ত্রক ১০০ শতাংশ কাজের লক্ষ্যমাত্রা অর্জন করায় ডঃ জীতেন্দ্র সিং সন্তোষ প্রকাশ করেছেন। বিশ্বব্যাপী মহামারী শুরুর অনেক আগে থেকেই এই মন্ত্রকই সম্ভবত ই-অফিস কার্যক্রমের মাধ্যমে এই লক্ষ্যমাত্রা অর্জন করে। তিনি ২০১৯-২০ অর্থবর্ষে ১০০% ব্যয় অর্জনের জন্য উত্তর পূর্বাঞ্চলের উন্নয়ন মন্ত্রকের দলকে অভিনন্দন জানিয়েছেন এবং কোভিড -১৯ -এর বিরুদ্ধে লড়াইয়ের জন্য পরিকাঠামো উন্নয়নে এবং পূর্বাঞ্চলীয় রাজ্য এবং বিভিন্ন কেন্দ্রীয় মন্ত্রক / বিভাগের মধ্যে সমন্বয়মূলক ভূমিকা পালন করার জন্য উত্তর পূর্ব রাজ্যগুলিকে সহায়তা করার জন্য মন্ত্রকের প্রচেষ্টার প্রশংসা করেছেন। অঞ্চলের সার্বিক উন্নয়নের জন্য বিরামহীন নেট সুবিধার গুরুত্বের উপর জোর দিয়েছেন, বিশেষত বর্তমান সংকট চলাকালীন যখন বেশিরভাগ কার্যক্রম অনলাইনের মাধ্যমে পরিচালিত হচ্ছে। কেন্দ্রীয় মন্ত্রী এই সময় কর্তৃপক্ষকে এই অঞ্চলের আর্থ সামাজিক উন্নয়নের জন্য নিরবচ্ছিন্ন উচ্চ গতির নেটসংযোগ বজায় রাখতে টেলিযোগাযোগ বিভাগের (ডিওটি) সাথে সমন্বয় করার আহ্বান জানান।

স্থানীয় প্রতিভাকে তুলে ধরার মাধ্যমে উত্তর পূর্বাঞ্চলের স্টার্ট আপগুলির  উদ্ভাবনী পদ্ধতিকে  উৎসাহ প্রদানের জন্য উত্তর পূর্ব উন্নয়ন আর্থিক নিগম লিমিটেড (এনইডিএফআই) -এর ভূমিকার বিষয়েও কেন্দ্রীয় মন্ত্রী অবহিত করেন। এই সংস্থা সম্ভাব্য উদ্যোক্তাদের বিশেষত এমএসএমই ক্ষেত্রগুলিতে বিনিয়োগের তহবিল সরবরাহ করে এবং বিনিয়োগের সুবিধার্থে স্থানীয় উদ্যোক্তাদের উৎসাহিত করেছে; একইসঙ্গে অভ্যন্তরীন এবং বন্ধুত্বপূর্ণ দেশগুলির অর্থনীতির উন্নয়ন ঘটিয়েছে।

জীতেন্দ্র সিং সীমান্ত সড়ক সংস্থার ডিরেক্টর জেনারেল, লেঃ জেনারেল হরপাল সিং এবং সীমান্ত সড়ক সংস্থা, বিআরও-র অন্যান্য উর্ধতন আধিকারিকদের সঙ্গেও মতবিনিময় করেছেন।

Related posts

কোভিড-১৯ প্রতিরোধে প্রতিষেধক তৈরি এবং পরিকল্পনা বিষয়ে পর্যালোচনা বৈঠক

E Zero Point

১২৫তম সিআইআই-এর বার্ষিক সভায় উদ্বোধনী ভাষণ দেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী

E Zero Point

ভারত শান্তি চায়। কিন্তু প্ররোচনা দিলে উপযুক্ত জবাব দিতে পারে ভারতঃ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী

E Zero Point

মতামত দিন