20/10/2020 : 8:21 PM
আমার দেশ কৃষ্টি বিনোদন রঙ্গমঞ্চ

অভিনেতা পরেশ রাওয়ালকে ন্যাশনাল স্কুল অফ ড্রামা সোসাইটির নতুন চেয়ারম্যান

জিরো পয়েন্ট নিউজ ডেস্ক, দিল্লী, ১৩ সেপ্টেম্বর, ২০২০:


রাষ্ট্রপতি শ্রী রামনাথ কোবিন্দ প্রবীণ অভিনেতা পরেশ রাওয়ালকে ন্যাশনাল স্কুল অফ ড্রামা সোয়াইটির চেয়ারম্যান পদে নিয়োগ করেছেন। এই উপলক্ষে কেন্দ্রীয় সংস্কৃতি এবং পর্যটন প্রতিমন্ত্রী শ্রী প্রহ্লাদ সিং প্যাটেল, শ্রী রাওয়ালকে অভিনন্দন জানিয়েছেন। তিনি বলেছেন, তাঁর প্রতিভা দেশের শিক্ষার্থী এবং শিল্পীদের উপকারে আসবে।

শ্রী পরেশ রাওয়ালকে চার বছরের জন্য ন্যাশনাল স্কুল অফ্ ড্রামা সোসাইটির চেয়ারম্যান পদে নিয়োগ করা হয়েছে। নাটক এবং চলচ্চিত্র উভয় ক্ষেত্রেই তাঁর সমান দক্ষতা রয়েছে। চার দশকেরও বেশি সময় ধরে চলচ্চিত্র ও নাট্য শিল্পের সঙ্গে তিনি যুক্ত। ১৯৯৪ সালে শ্রী রাওয়াল সেরা সহায়ক অভিনেতার জন্য জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারে সম্মানিত হন। এছাড়াও তিনি অভিনয়ের জন্য অসংখ্য পুরস্কারে সম্মানিত হয়েছেন। ২০১৪ সালে তিনি ভারতের চতুর্থ সর্বোচ্চ অসামরিক পুরস্কার পদ্ম সম্মানে ভূষিত হয়েছেন। ভারতের বিনদন শিল্পে অসামান্য অবদানের জন্য তাঁকে সাংসদ সদস্য হিসেবেও নির্বাচিত করা  হয়।

ন্যাশনাল স্কুল অফ্ ড্রামা সোসাইটির ভাইস চেয়ারম্যান ডঃ শ্রী অর্জুন দেও চরণ এই নিয়োগ প্রসঙ্গে জানিয়েছেন, ‘এই পদে পরেশজী-কে সরকারের নিয়োগের সিদ্ধান্তে আমরা সত্যিই খুশি। আমাদের শিক্ষার্থী এবং ফ্যাকাল্টি সদস্য ও অন্যান্য ব্যক্তিত্বরা প্রবীণ এই অভিনেতার সঙ্গে কাজ করার সুবিধা পাবেন। তাঁর দীর্ঘ অভিজ্ঞতা থেকে ন্যাশনাল স্কুল অফ্ ড্রামা উপকৃত হবে।’

ন্যাশনাল স্কুল অফ্ ড্রামার দায়িত্বপ্রাপ্ত অধিকর্তা অধ্যাপক সুরেশ শর্মা নতুন এই চেয়ারম্যানকে স্বাগত জানিয়েছেন। তিনি বলেছেন, প্রবীণ এই নাট্য ব্যক্তিত্বের দীর্ঘদিনের অভিজ্ঞতা থেকে ন্যাশনাল স্কুল অফ্ ড্রামার সকলে উপকৃত হবেন। তাঁর অভিজ্ঞতা ন্যাশনাল স্কুল অফ্ ড্রামাকে এক নতুন পথ দেখাবে বলেও মন্তব্য করেছেন তিনি। শ্রী রাওয়ালের নেতৃত্বেই ন্যাশনাল স্কুল অফ্ ড্রামা নতুন উচ্চতায় পৌঁছবে বলেও আশাপ্রকাশ করেছেন তিনি।

ন্যাশনাল স্কুল অফ্ ড্রামার সদস্যরা একজন অসাধারণ অভিনেতা এবং দক্ষ মানুষকে পেয়ে খুশি ব্যক্ত করেছেন। সংস্থার বিকাশের জন্য শ্রী রাওয়াল আরও দৃঢ় ও নিষ্ঠার সঙ্গে কাজ করবেন বলেও অভিমত ব্যক্ত করেছেন তাঁরা।

১৯৪৯ সালে ভারত সরকারের সংস্কৃতি মন্ত্রকের অর্থ সাহায্যে স্বশাসিত সংস্থা হিসেবে ন্যাশনাল স্কুল অফ্ ড্রামা প্রতিষ্ঠিত হয় । বিশ্বের অন্যতম শীর্ষস্থানীয় নাট্য প্রশিক্ষণ কেন্দ্র এটি। ন্যাশনাল স্কুল অফ্ ড্রামার সঙ্গীত নাটক অ্যাকাডেমির আওতায় একটি সংস্থা হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল। পরবর্তীতে ১৯৭৫ সালে এটি স্বাধীন সংস্থা হিসেবে গড়ে ওঠে। এখানে নাটকের তিন বছরের পূর্ণ সময়কালীন, আবাসিক প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা রয়েছে। নাটক রচনা, অভিনয়, পরিচালনা, সেট এবং লাইট ডিজাইনার ও সঙ্গীত নির্দেশনা সহ একাধিক ক্ষেত্রে জড়িয়ে রয়েছে বহু উজ্জ্বল নক্ষত্রের নাম। ন্যাশনাল স্কুল অফ্ ড্রামা ভারতের নাট্য জগৎকে অতীতেও সমৃদ্ধ করে তুলেছিল এবং এখনও করে চলেছে। ন্যাশনাল স্কুল অফ্ ড্রামার নতুন দিল্লির শাখা ছাড়াও প্রচার কর্মসূচীর জন্য বারাণসী, গ্যাংটক, আগরতলা এবং বেঙ্গালুরুতে চারটি কেন্দ্র রয়েছে।

Related posts

তেল আমদানির উপর করোনার প্রভাব

E Zero Point

রাস্তার হকারদের ব্যবসায়িক ও ডিজিটাল লেনদেনের জন্য ওটিটি প্ল্যাটফর্মের সুবিধা দেওয়া হবে : প্রধানমন্ত্রী

E Zero Point

বিহারের দ্বারভাঙায় নতুন এআইআইএমএস প্রতিষ্ঠার অনুমোদন কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভার

E Zero Point

মতামত দিন