17/04/2024 : 9:05 AM
অন্যান্য

পুনের মসজিদে রমজানে নামাজ হবে না, কোয়ারেন্টাইন সেন্টার করা হল

সারথী দেশমুখ, পুনেঃ গোটা দেশজুড়ে করোনার প্রকোপ থেকে বাঁচার জন্য চলছে একমাসের বেশি হল লকডাউন চলছে। এরই মাঝে ইসলাম ধর্মালম্বীদের রমজান শুরু হয়েছে গত ২৫ এপ্রিল থেকে। দেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর আবেদনে এবারের রমজানের রোজা ও প্রতিদিনের নামাজ লকডাউন মেনে ঘরে পালন করার আবেদন রেখেছেন। এমতাবস্থায় মহারাষ্ট্রের পুনে শহরের একটি মসজিদ দেশবাসীর জন্য অভিনব উদ্দ্যোগ নিল। সেখানে আজম ক্যাম্পাসের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের অভ্যন্তরে অবস্থিত একটি মসজিদ কোভিড -১৯ (করোনভাইরাস) রোগীদের জন্য কোয়ারেন্টাইন সেন্টারে পরিণত করা হয়েছে।

মহারাষ্ট্র কসমোপলিটন অ্যান্ড এডুকেশন সোসাইটির চেয়ারম্যান পি এ ইনামদারকে জানিয়েছেন, মসজিদের প্রথম তলায় ৯০০০ বর্গফুট হলটি ৮০টি শয্যা বিশিষ্ট কোয়ারেন্টাইন সেন্টারে পরিণত করা হয়েছে। আমরা প্রশাসনের প্রয়োজনীয় অনুমতি পেয়েছি এবং প্রথম তলটি কোয়ারেন্টাইন সেন্টার হিসাবে ব্যবহারের জন্য প্রস্তুত করেছি। এখানে থাকা রোগীদেরও খাদ্য সরবরাহ করা হবে ট্রাষ্ট থেকে।

তিনি আরও জানান যে, যদি এখানে রোগীদের জন্য আরও জায়গার প্রয়োজন হয় তবে পুরো ক্যাম্পাস প্রশাসনের কাছে হস্তান্তর করে দেওয়া হবে।

পুনের জেলা কালেক্টর নাভাল কিশোর রাম বলেছেন, “আমরা আজম ক্যাম্পাস ম্যানেজমেন্ট যে অফারটি দিয়েছে তা বিবেচনা করব। আমরা বড় জায়গাগুলির সন্ধান করছি এবং প্রয়োজনীয় চেক করার পরে একটি চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। ”

সংবাদ সূত্রে জানা যায় যে, আজম ক্যাম্পাস ব্যবস্থাপনায় গরিব-দরিদ্রদের জন্য ২৫ লক্ষাধিক টাকার খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে এবং কোঁধোয়া সহ নগরীর কেন্দ্রীয় অঞ্চলে রোগীদের জন্য ২৫ টি ডাক্তার কর্মীর সাথে পাঁচটি অ্যাম্বুলেন্স পরিষেবা দেওয়া হয়েছে।

Related posts

রমজানঃ প্রবল গরমে রোজা করার সময় কিছু সতর্কতা

E Zero Point

করোনা ভাইরাস মোকাবিলায় রাষ্ট্র ও সরকারের সাথে আমাদেরও ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ

E Zero Point

কাউন্সিলার সামসুল হক মির্জা অসহায় মানুষের পাশে

E Zero Point

মতামত দিন