03/10/2022 : 8:18 PM
BREAKING NEWS
আমার বাংলাদক্ষিণ বঙ্গপূর্ব বর্ধমানমেমারি

কে হবেন মেমারির পৌরপিতা? শপথ গ্রহণের আগে জল্পনা তুঙ্গে

জিরো পয়েন্ট নিউজ ডেস্ক, এম. কে. হিমু, মেমারি,  ১৫ মার্চ ২০২২:


আগামীকাল বুধবার মেমারি কৃষ্টি প্রেক্ষাগৃহে সকাল ১১টার সময় মেমারি পৌরসভার নবনির্বাচিত কাউন্সিলরদের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠান হবে তার আগে মেমারি পৌরসভার পৌরপিতা ও উপ-পৌরপিতা কে হবেন সেই নিয়ে দলীয় নেতৃত্ব থেকে শুরু করে কর্মীদের মধ্যে জোর চর্চা শুরু হয়েছে।

ইতিমধ্যে সোমবার সন্ধ্যা থেকে সামাজিক মাধ্যমে একটি তালিকা ভাইরাল হয়েছে। যেখানে পূর্ব বর্ধমান জেলার ৬ টি পৌরসভার – গুসকরা পৌরসভা (চেয়ারম্যান – কুশল মুখার্জী, ভাইস চেয়ারম্যান – বেলী বেগম), দাঁইহাট পৌরসভা (চেয়ারম্যান – শিশির মন্ডল, ভাইস চেয়ারম্যান – অজিত ব্যানার্জী), কাটোয়া পৌরসভা (চেয়ারম্যান – সমীর সাহা, ভাইস চেয়ারম্যান – লখীন্দর মন্ডল), মেমারি পৌরসভা (চেয়ারম্যান – স্বপন বিষয়ী, ভাইস চেয়ারম্যান – সুপ্রিয় সামন্ত), বর্ধমান পৌরসভা (চেয়ারম্যান – পরেশচন্দ্র সরকার, ভাইস চেয়ারম্যান – মৌসুমী দাস), কালনা পৌরসভা (চেয়ারম্যান – আনন্দ দত্ত, ভাইস চেয়ারম্যান – তপন পোড়েল)-এর নাম তালিকা ভুক্ত করা হয়েছে। যদিও এই তালিকার কোন আধিকারিক সীলমোহর নেই তাই এই তালিকার সত্যতার উপর প্রশ্ন চিহ্ন থেকেই যাচ্ছে।

অন্যদিকে রাতের দিকে প্রথমশ্রেণীর একটি সংবাদ পোর্টালে আর একটি তালিকা প্রকাশ হয়েছে। সেটি হলো- গুসকরা পৌরসভা (চেয়ারম্যান কুশল মুখার্জি, ভাইস চেয়ারম্যান বেলি বেগম), দাঁইহাট পৌরসভা (চেয়ারম্যান শিশির কুমার মণ্ডল , ভাইস চেয়ারম্যান অজিত ব্যানার্জি), কাটোয়া পৌরসভা (চেয়ারম্যান সমীর সাহা, ভাইস চেয়ারম্যান লখিন্দর মণ্ডল), মেমারি পৌরসভা (চেয়ারম্যান সুপ্রীয় সামান্ত, ভাইস চেয়ারম্যান কৃষ্ণপদ বিশ্বাস), বর্ধমান পৌরসভা (চেয়ারম্যান শিখা সেনগুপ্ত , ভাইস চেয়ারম্যান রাসবিহারী হালদার), কালনা পৌরসভা (চেয়ারম্যান আনন্দ দত্ত , ভাইস চেয়ারম্যান তপন পোড়েল)।

স্বাভাবিক ভাবেই এই তালিকাতেও কোন আধিকারিক সীলমহোর নেই। সবই সম্ভাব্য বলে মনে করা হচ্ছে। বিশেষ সূত্রে খবর দুটি তালিকাকেই তৃণমূলের শীর্ষস্থানীয় নেতৃত্বরা গুরুত্ব দিচ্ছেন না।

মেমারি পৌরসভার প্রাক্তণ চেয়ারম্যান স্বপন বিষয়ীকে এ ব্যপারে প্রশ্ন করা হলে তিনি জানান দলীয় নেতৃত্ব যা সিদ্ধান্ত নেবেন তিনি সেটাই গ্রহণ করবেন। মেমারি শহরের উন্নয়ণ ও মেমারিবাসীকে সুষ্ঠ পরিষেবা দেওয়ায় তার লক্ষ্য।

রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের মতে মেমারি পৌরসভার চেয়ারম্যানের দৌড়ে দুূ’বারের চেয়ারম্যান ও প্রাক্তণ প্রশাসক স্বপন বিষয়ী অনেকটাই এগিয়ে। অন্যদিকে ৫ নং ওয়ার্ডের নতুন কাউন্সিলর ও প্রাক্তণ সহ প্রশাসক ড. কৃষ্ণপদ বিশ্বাসের নামও শোনা যাচ্ছে রাজনৈতিক মহলে।

প্রাক্তণ ভাইস চেয়ারম্যান ও ১০ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর সুপ্রিয় সামন্তকে বিগত দিনে প্রশাসক বোর্ডের সদস্য থেকে অব্যহতি দেওয়া হলেও ভাইস চেয়ারম্যানের দৌড়ে তিনিও অনেকটাই এগিয়ে বলে মনে করছেন রাজনৈতিক মহল। প্রথমশ্রেণীর একটি সংবাদ পোর্টালের সম্ভাব্য তালিকায় সুপ্রিয় সামন্তকে চেয়ারম্যান হিসাবে রাখা হয়েছে।

অন্যদিকে রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের মতে এবার মেমারি পৌরসভায় ভাইস চেয়ারম্যানের পদটি কোন মহিলা পেতে পারেন সেক্ষেত্রে অভিজ্ঞ কাউন্সিলর ৩ নং ওয়ার্ডের মানসুরা বেগম ও ৭ নং ওয়ার্ডের রত্না দাসের নাম উঠে এলেও নতুন মহিলা কাউন্সিলরদের মধ্য থেকেও নাম উঠে আসছে বলে জানা যাচ্ছে বিশেষ সূত্রে।

মেমারি শহর তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি স্বপন ঘোষাল জিরো পয়েন্টকে জানান যে, রাজ্য নেতৃত্ব আমাকে পৌরসভা নির্বাচনের যে দায়িত্ব অর্পন করেছিলেন তা আমি সুসম্পন্ন করে দিয়েছি। এবার রাজ্য নেতৃত্বই ঠিক করবে বাকী কিছু। আর মাত্র কয়েক ঘন্টার পর মেমারি পৌরসভার নতুন চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যান কে হবেন তা স্পষ্ট হয়ে যাবে।  দুপুর ৩ টেয় বর্ধমানে সংস্কৃতি হলে  পূর্ব বর্ধমান জেলা তৃণমূলের সভাপতি রবীন্দ্রনাথ চট্টোপাধ্যায়  গুসকরা পৌরসভা বাদে বাকি বর্ধমান, মেমারি, কালনা, কাটোয়া ও দাঁইহাট পুরসভার চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যানদের নাম ঘোষণা করবেন বলে এখনও পর্যন্ত খবর আছে।

এব্যপারে মেমারি পৌরসভার একমাত্র বিরোধী মহিলা কাউন্সিলর কংগ্রেসের মিঠু সরকার জিরো পয়েন্টকে জানান যে, রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী যেমন বলেছেন জনতার রায়কে সম্মান জানাতে হবে, সেই অনুসারে চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যান যিনিই হোক না কেন তারা যেন বিরোধী ওয়ার্ডের প্রতি বিমাতৃসুলভ আচরণ যেন না করেন। যা বিগত সময়ে মেমারি পৌরসভায় বিরোধীদের সাথে করা হয়েছে। ৪ নং ওয়ার্ডের উন্নতির জন্য সমস্ত রকমের সহযোগিতা যেন পাওয়া যায়।

মেমারির শহরের প্রতিটি সাধারণ মানুষের মতে যিনিই চেয়ারম্যান ও ভাইসচেয়ারম্যান হোক তিনি যেন নাগরিকদের সাথে জনসংযোগে কার্পণ্য না করেন। নাগরিক পরিষেবার জন্য মেমারি পৌরসভার সমস্ত কাউন্সিলর নিজ নিজ ওয়ার্ডে দায়বদ্ধ।

Related posts

কালনার আগড়াদহেও সুপার ভাইজার নিয়ে ক্ষোভ

E Zero Point

শ্রদ্ধার সাথে হুল দিবস পালন কালনায়

E Zero Point

৪৮ ঘন্টার লকডাউনের পর ভিড়ে ঠাসা মেমারির রাস্তাঘাট

E Zero Point

মতামত দিন