29/09/2022 : 1:33 PM
BREAKING NEWS
আমার বাংলাদক্ষিণ বঙ্গপূর্ব বর্ধমানবর্ধমান

BARDHAMAN : সাইকেলে ভারত ভ্রমণকারী পরিমল কাঞ্জি বর্ধমানে

জিরো পয়েন্ট নিউজ ডেস্ক, এম.কে হিমু,  ১ নভেম্বর ২০২১:


শনিবার বর্ধমান শহরের বুকে এক অভিনব সাইকেল র‍্যালির আয়োজন হয়। তবে এই সাইকেল র‍্যালি কোন রাজনৈতিক দলের পেট্রোল-ডিজেলের মূল্যবৃদ্ধির নাটুকে প্রতিবাদ র‍্যালি নয়- আসন্ন দীপাবলিতে শব্দবাজি ও বায়ুদূষণের বিরুদ্ধে এক সচেতনতামূলক সাইকেল র‍্যালি।

বর্ধমান সাইক্লিং ক্লাবের উদ্যোগে এবং সুইচ ফাউন্ডেশন ও বোন জয়েন্ট ইনস্টিটিউশনের সহযোগিতায় আলোকসজ্জা সহযোগে সান্ধ্য সাইকেল র‍্যালি শুরু হয় জেলা পুলিশ সুপারের অফিসের সামনে থেকে। বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে দিয়ে ঘুরে সাইকেল র‍্যালি শেষ হয় টাউন হলে।

বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের সদস্য ছাড়াও প্রায় ২০০ জন সাইকেল আরোহী এই র‍্যালিতে অংশগ্রহণ করেছিলেন। বর্ধমান শহরের এই সাইকেল র‍্যালিতে অংশগ্রহণ করেছিলেন সাইকেলে ভারত ভ্রমণকারী পরিমল কাঞ্জি। চলতি বছরে কলকাতা থেকে ভারত ভ্রমণে বেরিয়েছেন বছর পঞ্চান্নর পরিমল কাঞ্জি। পেশায় প্রেশার কুকার সারাইয়ের মিস্ত্রি পরিমল কাঞ্জি পথে যেতে যেতে পরিবেশ সচেতনের বার্তাও দেন ৷ গাছ লাগানো, পরিবেশ দূষণ সম্পর্কে সমাজকে সচেতন করেন ৷ পেট্রোলের দাম আকাশ ছুঁয়েছে ৷ পরিমলবাবু জানান, একটা সময় আমারও স্কুটার ছিল ৷ তখন পেট্রল ছিল ১৬ টাকা লিটার ৷ আজ সেটা ১০০ টাকার উপলে গিয়ে পৌঁছেছে ৷ লোকে দু’কিলোমিটার পথ পাড়ি দিতে গাড়ির ব্যবহার করে। এর ফলে পরিবেশও দূষিত হয়, অন্যদিকে সাইকেল চালালে একদিকে যেমন শরীর, মন সুস্থ থাকে অন্যদিকে পরিবেশ দূষণও কম হয়। পরিবেশ বাঁচাতে সাইকেলের কোন বিকল্প নেই।

পাল্লারোড পল্লিমঙ্গল সমিতির সম্পাদক সন্দীপন সরকার বলেন বর্ধমানের বুকে দীপাবলির আগে আলোকসজ্জা সহযোগে সান্ধ্য সাইকেল র‍্যালি এই প্রথমবার, শুরুতেই মানুষের যে সাড়া মিলেছে তা ভবিষ্যতে পথ দেখাবে।

বর্ধমান সাইক্লিং ক্লাবের পক্ষ থেকে সোহিনী দেবরায়  জানান, এমনিতেই কলকারখানা, গাড়ির ধোঁয়ায় সারাবছর ধরেই  কালো বিষাক্ত বায়ু মানুষের শরীরে প্রবেশ করছে। শব্দবাজি, আতশবাজির দৌলতে উৎসব অনুষ্ঠানে বায়ুদূষণের পরিমাণ আরেকটু বেড়ে যায় । আসন্ন দীপাবলীতে কলকাতা হাইকোর্ট থেকে শব্দবাজি, আলোবাজি নিষিদ্ধ করা হলেও সর্বস্তরের সাধারণ মানুষজনের মধ্যে সচেতনতা পৌঁছে দেওয়া সম্ভব হয়নি। সেই সচেতনতা বৃদ্ধি করার জন্য বর্ধমানে এই সাইকেল র‍্যালির আয়োজন করা হয়েছে। বর্ধমানের শহরের কিছু সাইকেলপ্রেমী মানুষের উদ্যোগে গড়ে উঠেছে বর্ধমান সাইক্লিং ক্লাব। তিনি জানান ক্লাবের প্রধান উদ্দেশ্য হল শহরের মধ্যে ছোটো ছোটো দূরত্ব অতিক্রম করতে সাইকেলের মতো পরিবেশবান্ধব যানকে জনপ্রিয় করা।



Related posts

এবার রাজ্যপাল দার্জিলিংয়ের রাজভবন থেকে রাজ্য পরিচালনা করবেন

E Zero Point

মহদীপুর এক্সপোর্ট অ্যাসোসিয়েশনের বার্ষিক সম্মেলন

E Zero Point

টোটো ইউনিয়নের সাথে গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকে ওসি

E Zero Point

মতামত দিন