30/09/2022 : 9:33 AM
BREAKING NEWS
অন্যান্য

রসুলপুর ও মেমারির করোনা সৈনিকদের সম্মানিত করলো WE R RASULPURIAN

প্রেরণা দে, মেমারিঃ বিশ্বজুড়ে করোনার ভয়াবহতার গ্রাফ আজ উর্দ্ধমুখী। লকডাউনে গৃহবন্দী থেকে একদল মানুষ দিশেহারা হয়ে আশার আলো দেখার জন্য দিনগুনছে অন্যদিকে একদল যুবক লকডাউনের বিধি নিয়ম মেনে অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ানোর সংকল্প নিয়ে ছুটে বেড়াচ্ছেন প্রতিদিন মানবিক সেবা পথে।

কথায় আছে আমাদের দেশের মানুষ সুরক্ষিত কারণ ভারতীয় সেনা দিন-রাত দাঁড়িয়ে পাহাড়া দিচ্ছেন বর্ডারে। ঠিক তেমনই অন্যান্য দেশের তুলনায় আমারা এখনও সুরক্ষিত ভাবে লকডাউনে দিনযাপন করছি কারণ দেশের ডাক্তার, স্বাস্থ্যকর্মী, পুলিশ, প্রশাসন ও সংবাদ মাধ্যমের প্রতিনিধিরা একযোগে করোনার বিরুদ্ধে লড়াই করছেন। আর সেই করোনা যুদ্ধের প্রথম সারির সৈনিকদের সম্মান জানাতে এগিয়ে এলো পূর্ব বর্ধমানের রসুলপুরের একটি সামাজিক মাধ্যমের গ্রুপ WE R RASULPURIAN।

আজ রসুলপুরের কিছু সিভিক পুলিশ, গ্রামীন পুলিশ, মেমারির ৬ জন সাংবাদিককে বৈদ্যডাঙ্গা প্রি-প্রাইমারী স্কুলে এবং বৈদ্যডাঙ্গার স্বাস্থ্য উপকেন্দ্রের ১০ জন আশাকর্মীকে সম্মান জানানো হয় WE R RASULPURIAN-এর গ্রুপ থেকে। গ্রুপের পক্ষ থেকে শ্যামাপ্রসাদ হাজরা জানান যে, লকডাউনের সময় রসুলপুর সহ আশেপাশের বিভিন্ন পরীযায়ী শ্রমিকদের খাদ্যসামগ্রী দান সহ অসহায় মানুষদের জন্য সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে নিঃশুল্কের বাজার-এর মাধ্যমে সেবাকাজে ব্রতী হয়েছে এই গ্রুপের সদস্যরা।

এছাড়াও পালসীট পুলিশ ফাঁড়ির ১০ জন পুলিশ কর্মী, মেমারি থানার ওসি সুদীপ্ত মুখার্জী সহ ২০ জন পুলিশ কর্মী, মেমারি গ্রামীন হাসপাতালের বি.এম.এইচ.ও. হর্ষ ঘোষ ও সমস্ত ডাক্তার, স্বাস্থ্যকর্মীদের করোনা সৈনিকরুপে সম্মান জানানো হয়। একজন খবরে কাগজ বিতরণকারীকেও সম্মান জানানো হয়।বৈদ্যডাঙ্গ প্রি-প্রাইমারী স্কুলের শিক্ষক ও সাহিত্যিক অসীম কুমার বিশ্বাস জানান যে, সমাজের কিছু বুদ্ধিজীবিরা বলে থাকেন আজকের যুব সমাজ অবক্ষয়ের মুখে দাঁড়িয়ে আছে। সারাদিন টাচস্ক্রীনের টাচে্ থাকতে ভালোবাসে ও নেটদুনিয়াতেই তাদের সামাজিক কর্তব্যের পোষ্ট ও শেয়ার করে থাকে, বাস্তব জীবনের সঙ্গে তাদের কোন সামাজিক যোগ নেই। কিন্তু করোনার প্রকোপে লকডাউনের সময় সেই টাচ্ স্ক্রীনের যুবক-যুবতীরায় আজ পাড়ায় পাড়ায় ঘুরে ঘুরে অসহায় মানুষের জন্য সেবার ব্রত নিয়েছে এবং নেটদুনিয়ার সামজিক মাধ্যমকেই পুঁজি করে বিভিন্ন কর্মকান্ডে যুক্ত হয়েছে।

WE R RASULPURIAN সেরকমই একটি সামাজিক গ্রুপ যেখানে রোহিত দাসগুপ্ত, গৌতম ঘোষ, আকাশ দাস, নিরুপমা চক্রবর্তী, পূর্ণিমা সরকার, সোনালী কাবাসী, শুভজিৎ গাঙ্গুলী, শুভ দাস, তামাল চৌধুরী, অভিজিৎ সরকার, স্বর্ণেন্দু বল, দেবাংশু রায়, জীবন চক্রবর্তী, মোহন চক্রবর্তী, সন্দীপ দাস সহ অনেকেই সেবা কাজে ব্রত থেকে আগামীতেও মানবসমাজের জন্য কিছু অবদান রেখে যাওয়ার জন্য বদ্ধপরিকর।

ছবিঃ নূর আহামেদ

 

 

Related posts

আসুন সকলে মিলে, সকলের জন্য কিছু করি | পিয়ালী মালাকার

E Zero Point

বৈশাখী উৎসব কমিটির মানবিক উদ্যোগ

E Zero Point

বেরুগ্রামে এক বৃদ্ধ মা-এর ডাকে পৌঁছে গেল দধীচি

E Zero Point

মতামত দিন